ভন্ড ছেলে -লেখক : মেজবাউল ইসলাম (মুন্না)
ভন্ড ছেলে লেখক : মেজবাউল ইসলাম (মুন্না) ভন্ড ছেলেরা করে ভন্ডামী, পরিবারের গলায় লাগায় দরি, দেয় না সম্মান কাউকে, চলে ভূবনের চারিধারে, সিগারেট বিড়ি, গাঁজা টানে, লোকেরা ছেলেকে ভন্ড বলে। ধর্ষন করা তাদের পেশা, কাউকে সম্মান করে না, পরিবারে কান্নার ছায়া ফেলে মানবতা নেই তাদের মাঝে। ধর্ষন করে ভন্ড ছাবালরা, সমাজে সৃষ্টি করে বিশৃঙ্খলা, পরিবারে […]

ভন্ড ছেলে লেখক : মেজবাউল ইসলাম (মুন্না)

ভন্ড ছেলেরা করে ভন্ডামী, পরিবারের গলায় লাগায় দরি, দেয় না সম্মান কাউকে, চলে ভূবনের চারিধারে, সিগারেট বিড়ি, গাঁজা টানে, লোকেরা ছেলেকে ভন্ড বলে।

ধর্ষন করা তাদের পেশা, কাউকে সম্মান করে না, পরিবারে কান্নার ছায়া ফেলে মানবতা নেই তাদের মাঝে।

ধর্ষন করে ভন্ড ছাবালরা, সমাজে সৃষ্টি করে বিশৃঙ্খলা, পরিবারে ডেকে আনে কান্না, তাদের মাঝে নেই মায়া আর মমতা।

ভন্ড ছেলেরা তাকায় না জনক আর জননীর দিকে, চলে ভূবনের চারিধারে, তাদের জন্য জনক, জননী সব সম্ভল হারিয়ে ফেলে তবুও তাকায় না তাদের দিকে।

কেন করছে ভন্ডামী তারা? তাদের মস্তিস্কে লুকিয়ে আছে শুধু অজ্ঞতা। শিক্ষা নেই তাদের তরে, শুধু তারা ধর্ষন আরা চাঁদাবাজী করে ।

পরিবারের দিকে না তাকিয়ে, তাকায় মেয়েদের দিকে, জনক, জননী পড়ে বিপদে, তাদের মাঝে নেই কোনো মানবতা, সমাজে ছড়িয়ে দেয় অশিক্ষা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *